• ২২শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ , ৯ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ , ১২ই শাবান, ১৪৪৫ হিজরি

ডেপুটির কাছে ক্ষমতা হস্তান্তর করেছেন মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী

usbnews
প্রকাশিত ফেব্রুয়ারি ১২, ২০২৪
ডেপুটির কাছে ক্ষমতা হস্তান্তর করেছেন মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী
নিউজটি শেয়ার করুনঃ

প্রোস্টেট ক্যান্সারে আক্রান্ত যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিরক্ষামন্ত্রী লয়েড অস্টিন। এর ফলে সৃষ্ট জটিলতায় তিনি হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার আগে ক্ষমতা হস্তান্তর করেছেন তার ডেপুটির কাছে। পেন্টাগণ বলেছে, জরুরি তার মূত্রথলি সংক্রান্ত সমস্যার কারণে ক্ষমতা হস্তান্তর করা হয়েছে। ৭০ বছর বয়সী অস্টিনকে ভর্তি করা হয়েছে ভার্জিনিয়ার ওয়াল্টার রিড ন্যাশনাল মিলিটারি মেডিকেল সেন্টারে। তিনি সেখানেই চিকিৎসা নেবেন। পেন্টাগন আরও জানিয়েছে এ খবর নিশ্চিত করেছে হোয়াইট হাউস এবং সিনিয়র কর্মকর্তারা।
প্রতিরক্ষামন্ত্রী ডিসেম্বরে ও জানুয়ারিতে তার প্রোস্টেট ক্যান্সার ধরা পড়া এবং হাসপাতালে থাকার বিষয়টি প্রকাশ না করায় তদন্তাধীন ছিলেন। এ জন্য গত সপ্তাহে তিনি দুঃখ প্রকাশ করেছেন। এ অবস্থায় রোববার স্থানীয় সময় বিকাল ৪টা ৫৫ মিনিটের দিকে পেন্টাগন দ্বিতীয় একটি বিবৃতি দেয়। তাতে বলা হয়, লয়েড অস্টিন তার কার্যক্রম এবং অফিসিয়াল দায়িত্ব বুঝিয়ে দিয়েছেন ডেপুটি প্রতিরক্ষামন্ত্রী ক্যাথলিন হিকসকে।

 

ইউক্রেনে চলমান যুদ্ধ নিয়ে এক বৈঠকে যোগ দিতে এ সপ্তাহের বুধবার ব্রাসেলস যাওয়ার কথা ছিল লয়েড অস্টিনের। তিনি হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার ফলে সেই পরিকল্পনা ভেস্তে যাবে কিনা তা পরিষ্কার নয়।
গত বছর তার প্রোস্টেট ক্যান্সারের অপারেশন করা হয়। কিন্তু সংশ্লিষ্ট বিষয়ে জটিলতার কারণে পায়ে, কোমড়ে এবং পেটে মারাত্মক ব্যথার জন্য নববর্ষের দিন তাকে আবার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তারপর পরীক্ষায় মূত্র চলাচলের পথে সংক্রমণ ধরা পড়ে। তখন থেকে কমপক্ষে দু’সপ্তাহ ধরে তিনি হাসপাতালে অবস্থান করছেন। জানুয়ারিতে তাকে যখন আবার হাসপাতালে ভর্তি করা হয় তার তিন দিন পরে প্রতিরক্ষা বিষয়ক সিনিয়র কর্মকর্তারা ও বাইডেন প্রশাসন এ বিষয়ে জানতে পারে। গত সপ্তাহে সংবাদ সম্মেলন করেন লয়েড অস্টিন। তিনি বলেন, তিনি যে হাসপাতালে ছিলেন সে বিষয়ে হোয়াইট হাউসের বা অন্য কোনো কর্মকর্তাকে না জানাতে তার কোনো স্টাফকে কখনোই নির্দেশ দেননি। তবে স্টাফরা তার নির্দেশের বাইরে গেছেন কিনা, এমন প্রশ্নের কোনো উত্তর দেননি তিনি। যথাযথভাবে বিষয়টি জানাতে ব্যর্থতার জন্য তিনি গভীর দুঃখ প্রকাশ করেন। এ জন্য প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের কাছে ব্যক্তিগতভাবে দুঃখ প্রকাশ করেছেন।